নিউজ ডেস্ক

চাইনিজ নিউ ইয়ার ২০২৪ উদযাপন উপলক্ষ্যে কক্সবাজারে বর্নাঢ্য র‌্যালি

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: ১০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ শনিবার, কক্সবাজার সমুদ্র সৈকত হতে র‌্যালিটি শুরু হয়ে শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদক্ষিণ করে।
চাইনিজ নিউ ইয়ার ২০২৪ উদযাপন উপলক্ষ্যে বিডব্লিজিইডি, ক্লিন এবং সংশপ্তক এর যৌথ আয়োজনে বর্ণাঢ্য র‌্যালিতে ঘুড়ি, বেলুন, হাতের ব্যান্ড, মাথায় রঙ ফিতা, ড্রাগনের ছবি, ফেস্টুন, ব্যানার, ও প্লাকার্ড হাতে র‌্যালিতে অংশগ্রহণকারীরা বলেন, বাংলাদেশের অর্থনীতির গতিশীলতার জন্য চায়না বিনিয়োগ দীর্ঘদিন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে চলেছে। বিশেষ করে জ্বালানি ও বিদ্যুৎ খাতে। আমদানি নির্ভর এলএনজি’র ওপর নির্ভর করে আমাদের দেশে গড়ে তোালা হয়েছে অনেকগুলে বিদ্যুৎ কেন্দ্র। বর্তমানে বাংলাদেশে ২৯টি এলএনজি ভিত্তিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র রয়েছে। বক্তরারা আরও বলেন, বাংলাদেশে ৫টি কয়লা বিদ্যুৎ কেন্দ্র রয়েছে। এসব ক্ষেত্রে চায়না বিনিয়োগ দীর্ঘদিন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখে চলেছে। চায়নিজ সরকারের বোঝা উচিত তারা বাংলাদেশের অর্থনীতি স্বচল রাখার জন্য প্রচুর বিনিয়োগ করছে। এর জন্য আমরা তাদের কাছে কৃতজ্ঞ এরং ঋণী। আমরা চায়নাকে ভালোবাসি বিধায় তাদের ‘চন্দ্রবর্ষ ২০২৪’ আড়ম্বরভাবে উদযাপন করছি, আমাদের জন্য চায়নিজ সরকারের সহযোগি তার হাত আরও বর্ধিত থাকুক এ আশাই আমরা করি। কিন্তু তাদের বিনিয়োগ কখনও কখনও আমাদের দেশের ভবিষ্যতের জন্য ক্ষতিকর হচ্ছে। চায়নার অনেক বিনিয়োগই হচ্ছে ফসিল ফুয়েল তথা এলএনজি ও কয়লা খাতে। যা আমরা চাই না।
তাই চায়নার কাছে আমাদের দাবিসমূহ: আমাদের জন্য ক্ষতিকর ফসিল ফুয়েল, এলএনজি এবং কয়লা খাতে আর কোনা বিনিয়োগ না করে আমাদের জন্য সুবিধাজনক এবং সাশ্রয়ী নবায়নযোগ্য জ্বালানিতে বিনিয়োগ কর। তোমাদের বিনিয়োগকৃত প্রতিষ্ঠানে মানবাধিকার নিশ্চিত কর। তোমাদের বিনিয়োগকৃত প্রতিষ্ঠান কর্তৃক পরিবেশের যেনো কোনো ক্ষতি না হয় সেদিকে নজর রাখো ।
চাইনিজ নিউ ইয়ার ২০২৪ উদযাপন উপলক্ষ্যে সাতক্ষীরায় বর্নাঢ্য র‌্যালিতে অংশগ্রহণ করেন উন্নয়ন সংগঠন সংশপ্তক উপ পরিচালক অগ্রদূত দাশগুপ্ত, কৃষিবিদ রফিকুল ইসলাম, বনবিদ সহিদর রহমান, হালিমা আক্তার, মোঃ শহীদুর রহমান, মোঃ হান্নান, সহ স্থানীয় কমিউনিটির সদস্য বৃন্দ।

মন্তব্য করুন