নিউজ ডেস্ক

মে দিবসে চট্টগ্রামে শ্রমিক সমাবেশ ও র‌্যালি করেছে বাংলাদেশ শ্রমিক ফেডারেশন

নিউজগার্ডেন ডেস্ক: বাংলাদেশ শ্রমিক ফেডারেশন (বাজেফে-১৭) চট্টগ্রাম বিভাগ ও বাংলাদেশ নিমার্ণ শ্রমিক কর্মচারী ফেডারেশন (বি-২২০৫) কেন্দ্রীয় কমিটি এবং এর আওতাধীন ট্রেড ইউনিয়নগুলোর যৌথ উদ্যোগে আন্তর্জাতিক শ্রমিক দিবস উপলক্ষে বুধবার ১ মে ২০২৪,সকাল ৯ টায় নগরীর ওয়াসার মোড় থেকে একটি র‌্যালি বের করা হয়। যা বিভিন্ন সড়ক প্রদক্ষিণ শেষে লাভ লেইন মোড়ে এসে পথ সভার মাধ্যমে শেষ হয়।

বাংলাদেশ শ্রমিক ফেডারেশন (বাজেফে-১৭) কেন্দ্রীয় কমিটির আইন বিষয়ক সম্পাদক মোহাম্মদ ইব্রাহিম ও বাংলাদেশ নিমার্ণ শ্রমিক কর্মচারী ফেডারেশন (বি-২২০৫) চট্টগ্রাম মহানগর সাধারণ সম্পাদক মোশাররফ হোসেনের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ শ্রমিক ফেডারেশন (বাজেফে-১৭) কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি এস কে খোদা তোতন।

এস কে খোদা তোতন বলেন,”১৮৮৬ সালের এই দিনে দৈনিক ৮ ঘন্টা মজুরি নির্ধারণ করার দাবীতে যুক্তরাষ্ট্রের শিকাগো শহরে আন্দোলন করতে গিয়ে আন্দোলনরত শ্রমিকরা জীবন উৎসর্গ করার কারনে আজ আমরা দৈনিক ৮ ঘন্টা মজুরিতে কাজ করছি।কিন্তু দুঃখের বিষয় শ্রমিকদের আত্মদানের সুফল এখনো শ্রমিক শ্রেনী পাচ্ছে না। বর্তমান সময়ে শ্রমিকরা বাজারের ভোগ্যপণ্যের দাম বৃদ্ধির কারনে যে মজুরি পাচ্ছে তা দিয়ে শ্রমিকদোর সংসার চলেনা।জাতীয় ও আন্তর্জাতিক প্রেক্ষাপটে মে দিবস অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। শ্রমজীবী মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠা ও অর্থনৈতিক ও কর্মসংকট দূর করতে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে লড়াই-সংগ্রামে অবতীর্ণ হতে হবে। শ্রমিকদের নিরাপদ কর্মস্থল, জীবন যাপনের জন্য সময় উপযোগী মজুরি নির্ধারণ, ট্রেড ইউনিয়ন অধিকার, শ্রম আদালতে মামলা ১৫০ দিনের মধ্যে নিষ্পত্তি ও রেশনিং চালু, পোশাক শ্রমিকদের ন্যূনতম বেতন ২৫ হাজার টাকাসহ বিভিন্ন সেক্টরে নিয়োজিত শ্রমিকদের ন্যায্য অধিকারের বিষয়ে বিভিন্ন দাবি তুলে ধরেন শ্রমিক নেতারা। প্রত্যক্ষ ও পরোক্ষভাবে দেশের ৯৫ ভাগ মানুষ শ্রমিক ও পাঁচ ভাগ মালিক। বেশিরভাগ মালিক শোষক ও বেশিরভাগ শ্রমিক শোষিত। বর্তমান শ্রম আইন সংশোধন করে শ্রমিকদের স্বার্থ রক্ষার জন্য দৃষ্টি আকর্ষণ করছি।”

এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন কে এম রুবেল, মাকসুদুর রহমান, গোলাম মোহাম্মদ, বশির উদ্দিন আহমেদ, মোশাররফ হোসেন, এস এম আজাদ, এস এম দুলাল,মোঃ জামসেদ,মোঃ রানা,আফতাব হোসেন, মোঃ কবির, হারুন রশিদ হিরু, আবদুর রহিম, আবদুস সালাম মাঝি, মো: সোহেল, জামাল উদ্দিন, তাজুল ইসলাম মো: কবির হোসেনসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।

মন্তব্য করুন