নিউজ ডেস্ক

রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারণে খালেদা জিয়াকে বন্দি করে রাখা হয়েছে: শামীম

বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবের রহমান শামীম বলেছেন, বাংলাদেশে গণতন্ত্র পুণূরুদ্ধারের জন্য বেগম খালেদা জিয়ার অবদান, সংগ্রাম ও আত্মত্যাগ গণতান্ত্রিক বিশ্বে অতুলনীয়। তার এই আকাশচুম্বী জনপ্রিয়তাকে আওয়ামীলীগ ভয় পায়। তাই তাকে রাজনীতি থেকে দূরে রাখার জন্য পরিকল্পিতভাবে মিথ্যা মামলায় সাজা প্রদান করে হীন চক্রান্ত করছে এই অবৈধ সরকার। শুধু মাত্র রাজনৈতিক প্রতিহিংসার কারণে দেশনেত্রীকে বন্দি করে রাখা হয়েছে। যা সম্পূর্ণ বেআইনি এবং সংবিধান বিরোধী। এই মামলায় জামিন পাওয়া তার সাংবিধানিক অধিকার। তিনি দীর্ঘ দিন যাবৎ বিভিন্ন জটিল রোগে ভুগছেন। চিকিৎসকেরা তার উন্নত চিকিৎসার জন্য বিদেশে প্রেরণের সুপারিশ করেছেন। পরিবার ও দলের পক্ষ থেকে তাকে মুক্তি দিয়ে বিদেশে প্রেরণের দাবি জানানো হয়েছে। কিন্তু অবৈধ সরকার তাদের ক্ষমতাকে চিরস্থায়ী করার লক্ষ্যে দেশনেত্রীকে হত্যার উদ্দেশ্যে উন্নত চিকিৎসা থেকে বঞ্ছিত করছে। আন্দোলন সংগ্রামের মাধ্যমে বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তি ও গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার করা হবে।

তিনি বুধবার (৩ জুলাই) দুপুরে রাঙ্গামাটি কাঁঠালতলীস্থ জেলা বিএনপির কার্যালয়ের সামনে বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবীতে রাঙ্গামাটি জেলা বিএনপির কেন্দ্র ঘোষিত বিক্ষোভ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, সাবেক এই প্রধানমন্ত্রীকে অবজ্ঞা ও অবহেলায় তীল তীল করে মৃত্যুর দিকে ঠেলে দেওয়া হচ্ছে। বিদেশে একটু উন্নত চিকিৎসার সুযোগও তাকে দেওয়া হয়নি। তিনি বাংলাদেশের মানুষের সবচেয়ে প্রিয় নেত্রী। তাকে বিদেশে চিকিৎসার সুযোগ দেয়া হচ্ছে না, এটা অমানবিক। এটা মানবতা বিরোধী অপরাধ।

রাঙ্গামাটি জেলা বিএনপির সভাপতি দীপন তালুকদার দিপুর সভাপতিত্বে ও সাধারণ সম্পাদক এড. মামুনুর রশীদ মামুনের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সমাবেশে বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন কেন্দ্রীয় বিএনপির সহ ধর্ম সম্পাদক এড. দীপেন দেওয়ান, সাবেক মন্ত্রী মনি স্বপন দেওয়ান। বক্তব্য রাখেন জেলা বিএনপির সহ সভাপতি সাইফুল ইসলাম পনির, সাংগঠনিক সম্পাদক সাইফুল ইসলাম শাকিল, সি. যুগ্ম সম্পাদক আলী বাবর প্রমুখ।

মন্তব্য করুন